শেষ দিনের প্রচারনায় ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থীরা

329

বন্দর প্রতিনিধিঃ নারায়ণগঞ্জ বন্দর উপজেলা নির্বাচন আগামী মঙ্গলবার ১৮জুন। তারই প্রচারনায় মেতে উঠেছে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকরা। শেষ দিনের প্রচারনায় বন্দর উপজেলার ৫টি ইউনিয়নে উড়োজাহাজ প্রতিকে ব্যাপক গনসংযোগ করেছে পুরুষ ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী সানাউল্লাহ সানু। অপরদিকে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী ফুটবল প্রতিকে সালিমা রহমান শান্তা,কলস প্রতিকে মাহমুদা আক্তার ও হাঁস প্রতিকে নুরুন নাহার সন্ধ্যা ভোটারদের বাড়ী বাড়ি গিয়ে প্রানপন চেষ্টা চালিয়েছে একটি ভোট প্রাপ্তির জন্য। যার যার প্রতিশ্রুতি নিয়ে তারা দিনব্যাপী প্রতিটি বাড়ীতে গিয়ে লিফলেট বিতরনের পাশাপাশি ভোটারদের কাছে শেষ নিবেদনটুকু করেছেন ভোট প্রার্থনার জন্য। ভোটাররা সকল প্রার্থীকেই যার যার অবস্থান থেকে আশ^স্তও করেছেন।
এদিকে পুরুষ ভাইস চেয়ারম্যান পদে সানাউল্লাহ সানুকে সমর্থণ করে নির্বাচন থেকে সরে দাড়িয়েছে ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী সাইদুল ইসলাম জুয়েল ও হাফেজ পারভেজ। তারা সানাউল্লাহ সানুকে নিয়ে বন্দরের বিভিন্ন এলাকা ঘরে বেড়িয়েছেন,একসাথে লাঞ্চ করা ছাড়াও উড়োজাহাজ প্রতিকে ভোটও চেয়েছে। সেক্ষেত্রে পুরুষ ভাইস চেয়ারম্যান পদে সানাউল্লাহ সানুর কোন প্রতিদ্বন্দি না থাকলেও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী ৩জনই নির্বাচনী মাঠে সরব রয়েছেন।
এদের মধ্যে ফুটবল প্রতিকে বন্দর থানা মহিলা আ’লীগ সভানেত্রী সালিমা হোসেন শান্তা ও মহানগর যুবমহিলালীগনেত্রী হাঁস মার্কা প্রতিকে নুরুন নাহার সন্ধ্যা ভোটারদের কাছে অপরিচিত মূখ। তবে কলস মার্কা প্রতিকে এডভোকেট মাহমুদা আক্তার পূণরায় ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী হওয়ায় নির্বাচন মাঠ একটু উত্তপ্ত রয়েছে। ভবিষ্যৎ অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগাতে পরিপক্কভাবে মাঠ চষে বেরাচ্ছেন এ প্রার্থী। এক্ষেত্রে ভোটাররা যোগ্যতার ভিত্তিতে এডভোকেট মাহমুদা আক্তারকেই বেছে নিবেন কিনা সেটা নির্ধারন হবে আগামী ১৮জুন বিকেলে। তবে ভোটাররা অনড় রয়েছেন তারা আগামী মঙ্গলবার সকালে যোগ্য প্রার্থীকেই ভোট দিয়ে উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদকে অলংকৃত করবেন।