উলিপুরে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসানী ৮ বছর গ্রেফতার

84


শাহিনুর আক্তার :

কুড়িগ্রামের উলিপুরে যাবজ্জীবন কারাদন্ডের ভয়ে ৮ বছর পালিয়ে থেকেও শেষ রক্ষা হলোনা এক পলাতক আসামীর। দীর্ঘদিন পলাতক থাকার পর মুন্সিগঞ্জের টঙ্গিবাড়ি থেকে তাকে র‌্যাবের সহযোগিতায় আটক করেন উলিপুর থানার এসআই শাহ আলম। আটক রফিকুল ইসলাম অফিয়াল (৫০) কে শনিবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।

থানা পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার বুড়াবুড়ি ইউনিয়নের পত্র নবিশ এলাকার রোস্তম আলীর সাথে প্রতিবেশি রফিকুল ইসলামের বিরোধ চলে আসছিল। ঘটনার দিন ২০০৮ সালের ১০ আগষ্ট সকালে রোস্তম আলী বাড়ির পাশে জমিতে থাকা গরুর বাছুর আনতে যায়। এ সময় রফিকুল ইসলাম গংরা রোস্তম আলীকে ঘিরে ধরে মারপিট করে পেটে বল্লম মারে। তার চিৎকারে প্রতিবেশিরা এগিয়ে এসে উদ্ধার করলে ঘটনাস্থলে রোস্তম আলীর মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় রোস্তম আলীর ভাই ওই দিন উলিপুর থানায় মামলা করেন।

এ ঘটনায় দীর্ঘদিন মামলা চলার পর ২০১৫ সালের ১৮ জানুয়ারী আদালত মামলার রায় ঘোষনা করেন। রায়ে রফিকুল ইসলাম অফিয়ালকে যাবজ্জীবন কারাদন্ডসহ ২০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। এরপর থেকেই আসামী পলাতক ছিলেন। এদিকে থানা পুলিশ তথ্যপ্রযুক্তির সহযোগিতায় শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) মুন্সিগঞ্জের টঙ্গিবাড়ি থেকে র‌্যাবের সহযোগিতায় রফিকুল ইসলামকে আটক করে থানায় নিয়ে আসেন। রফিকুল ইসলাম বুড়াবুড়ি ইউনিয়নের পত্র নবিশ এলাকার রজব আলীর ছেলে বলে জানা গেছে।

উলিপুর থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) গোলাম মর্তুজা ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, রফিকুল ইসলামকে শনিবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।