আনিসুর রহমানের স্বরচিত কবিতা ব্যর্থ কষ্ট

49

ব্যর্থ_কষ্ট

………..আনিছুর রহমান
বহু কষ্টের এ দে-শ
কেন মধুমঞ্জুরীতে হবে শেষ
আজও কেন স্বাধীনতার অস্তিত্বে রক্তক্ষরণ?

ক্লান্ত হয়ে লুটিয়ে সবুজ গালিচা
ক্লান্ত ধানসিঁড়ি;
কেন শ্রান্ত অশ্রুপাতে মায়ের বাতায়ন?

বহু কষ্টের এ দে-শ
স্বাধীন হওয়ার পঞ্চাশ এ-র পরেও
কেন এতো সংঘাত, ছন্নছাড়া দূর্বৃত্তরা?

কলঙ্কিতে দে-শ মাতৃত্বের ভালোবাসা
স্তব্ধ, পাথর দেহ;
কেন এখনো লজ্জা অভিমান, তীব্র ঘৃণা?

পানসে জীবন শ্বাপদ অন্ধকার
বানীছন্দে অগ্নিপিন্ডি বিষের আলাপন
কেন বিভেদে উত্তর দক্ষিণ পুূর্ব পশ্চিম?

কেন লোভের পাল্লা ভারী
শিহরিত থাকে নারী; কান্নার প্রতিধ্বনি
বিলিয়ে দিতে হচ্ছে সতী-সম্ভ্রম?

বাকরুদ্ধ, অনাধিকার চর্চা, জিঘাংসা
একতরফা প্রেম;
কেন অযুত নয়নে অশ্রু বিসর্জন?

তবে কি তাদের অন্তরেও হানাদারদের প্রেতাত্মা!!
তাই বুঝি স্বপ্ন দুয়ারে পঙ্খীলতা;
কেন প্রতিনিয়ত নৃশংসতা খুন, গুম, ধর্ষন?

সত্য ফেরে বিপন্ন , নিঃসঙ্গও বটে
রাজঘরে অশ্লীল চীৎকার;
দূরনীতি আর শোষণের নেই অবসান

হিংস্রতার শত হুল
নিষ্পাপ ধার্মিক, তারাও কুঁকড়ে মুখ থুবড়ে
কেন অমানবিক শানিত ছুরিতে রক্তস্নান?

সূর্য্যের উষ্ণ আলো
অথবা চাঁদের কোমল সুষমায়
চুলের খোপা খুলে যুবতীরা পা ফেলতে পারে কি?

নীড়গুলো বড্ড একা
বদ্ধ জানালা বদ্ধ-ই থেকে যায়
অকুতোভয়ে শান্তিতে সু-নিদ্রা আসে কি?