আড়াইহাজারে আসামি জামিনে এসেই বাদীকে হুমকি

71

মোঃ মোক্তার হোসাইন (নারায়ণগঞ্জ) বিশেষ প্রতিনিধি

আড়াইহাজার উপজেলার অন্তর্গত পূর্বকান্দি গ্রামে ২০১৪ সালে প্রকাশ্য দিবালোকে গুলিতে নিহত রব মিয়া (২৮) হত্যার আসামি শাহজালাল(২৯) ৯ বছর পলাতক থাকার পর ১৮ জুন, রবিবার ২০২৩ গ্রেফতার করা হয়। শাহজালাল কালাপাহাড়িয়া ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ড কদমিরচর গ্রামের শহিদ মিয়ার ছেলে।এই এলাকার ২ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আম্বর আলী প্রধানের ভাতিজা ,যুবলীগ নেতা রব মিয়া (২৮) হত্যা মামলার, মামলা নং ৫/১২/২০১৪ এর ওয়ারেন্টভুক্ত আসামি।গত ১৬-০৫-২০২৪ইং তারিখে
শাহজালাল হাইকোর্ট থেকে জামিন নিয়ে কদমিরচর গ্রামে গিয়ে মামলার বাদী ও স্বাক্ষীগণকে হুমকি দিচ্ছে বলে মোবাইল ফোনে জানান নিহত রব মিয়ার চাচা আম্বর আলী প্রধান। আম্বর আলী প্রধান আরো বলেন আসামী শাহজালাল দীর্ঘ নয় বছর পলাতক ছিলো যে কারণে মামলার বাদী ও স্বাক্ষীরা ভয়ে স্বাক্ষী দিতে পারে নাই। আসামীর বিরুদ্ধে W/A ইস্যু থাকায় পরবর্তীতে আড়াইহাজার থানা পুলিশ আসামী শাহজালালকে গ্রেফতার করে ১৯-০৬-২০২৩ তারিখে বিজ্ঞ আদালতে প্রেরণ করে। পরে এই মামলার স্বাক্ষীরা একেক করে তিনটি স্বাক্ষী দেয়। কিন্তু আসামী শাহজালাল এর বাবা শহিদ ও ভাগিনা শাহিন এবং আলমগীর নিহত রব মিয়ার বাবা জব্বরকে ১৫-০৫-২০২৪ ইং তারিখ সন্ধা ৭ ঘটিকার সময় পথ রোধ করে হুমকি দিয়েছে।শাহজালালের পিতা শহিদ বলেন,আমার পোলার জামিন হয়েছে যদি আদালতে গিয়ে আর স্বাক্ষী দেছ তাহলে আমার পোলা আগামীকাল বের হয়ে আসবে।তোর পোলা রব মিয়াকে যেভাবে মেরেছে শাহজালাল এসে তোর পোলা ফারুককেও একইভাবে মারা হবে বলে হুমকি দিয়েছে শাহজালালের বাবা শহিদ মিয়া কারণ একজন মারলে যে ফাঁসী একাধিক মারলে একই ফাঁসী।১৭ তারিখে শাহাজালাল জামিনে এসেই শোডাউন’, মামলার বাদী ও স্বাক্ষীগণ আতঙ্কে.. এবং বিভিন্নভাবে হুমকি ও ভয়ভীতি দেখাচ্ছে এমন অবস্থায় নিহত রব মিয়ার পরিবার মামলার বাদী ও স্বাক্ষীরা মৃত্য ভয়ে আতঙ্কে আছে। আড়াইহাজার থানার ওসি আহসানউল্লাহ এ ব্যাপারে থানায় অভিযোগ করা হলে আমরা আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রগণ করেছি। মামলাটি এখন বিচারাধীন আছে মামলার সেশন ৬১০/১৭ নম্বর ধারা ১৪৩/৩২৬/৩০২/৩৮০/৭৪২/৩৪ পেনাল কোডের স্বাক্ষীর জন্য আছে বিজ্ঞ অতিরিক্ত দায়রা জজ ৪র্থ আদালত নারায়ণগঞ্জ।