খোকার লাঙল প্রতীকে ভোট চেয়ে উঠান বৈঠক করেছেন তার সহধর্মীনি ডালিয়া লিয়াকত

426

তৌরব ও হাসিবুল, সোনারগাঁঃ সোনারগাঁয়ে মহাজোটের প্রার্থী জাতীয় পার্টির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব লিয়াকত হোসেন খোকার লাঙল প্রতীকে ভোট চেয়ে উঠান বৈঠক করেছেন তার সহধর্মীনি ডালিয়া লিয়াকত। গতকাল বুধবার সাদিপুর ইউনিয়নের গঙ্গাপুর বাজার, বরাব, দেওভোগ, শিংলাব ও আন্দারমানিক এলাকায় তিনি উঠান বৈঠক করেন।

এসময় ডালিয়া লিয়াকত বলেন, তার স্বামী গত ৫ বছর সোনারগাঁয়ের মানুষকে শান্তিতে রাখার চেষ্টা করেছে। সুখে দুঃখে মানুষ তাকে কাছে পেয়েছে। এমপি হিসেবে তিনি কখনো অহংকার করেননি। মানুষকে মিথ্যা মামলা-হামলা করে হয়রানী করেননি। মা-বোনদের সুবিধার জন্য নিজে সংগ্রাম করে গ্যাস রক্ষা করেছেন। তিনি অন্যায়ভাবে কারো জমি দখল করেননি। বরং নিজের পৈত্রিক সম্পত্তি বিক্রি করে মানুষের কল্যাণে ব্যয় করেছেন।

ডালিয়া লিয়াকত বলেন, রাজনৈতিক প্রতিহিংসার কারনে যারা এমপি খোকার বিরুদ্ধাচারন করেছে তিনি তাদেরকেও বুকে টেনে নিয়েছেন। মনের পশুত্বকে দমিয়ে রেখে তাদের দাবি-দাওয়া ও অনুরোধ আগে পূরণ করেছেন। কারণ, তিনি শত্রুতা চাননি। ভালোবাসা দিয়ে শত্রুকে মিত্র বানাতে তিনি খুবই পছন্দ করেন। দেশের সমসাময়িক ইতিহাসে এমন জনপ্রতিনিধি খুবই বিরল। তাই ৩০ ডিসেম্বর লাঙল প্রতীকে ভোট দিয়ে লিয়াকত হোসেন খোকাকে আবারো এমপি নির্বাচিত করার আহবান জানান ডালিয়া লিয়াকত।

উঠান বৈঠকে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- জাতীয় মহিলা পার্টির নেত্রী জাহানারা আক্তার, মাহমুদা ইসলাম ফেন্সী, পৌরসভার কাউন্সিলর জাহেদা আক্তার মনি, শ্যামলী চৌধুরী, সাদিপুর ইউনিয়ন জাতীয় পার্টির আহবায়ক আবুল হাশেম, সদস্য সচিব নূর হোসেন মেম্বার, জাতীয় পার্টি নেতা রফিকুল ইসলাম মেম্বার, নূরুজ্জামান মেম্বার, সাবেক মেম্বার আমির আলী, আয়নাল হক ভুইয়া, সখিনা আক্তার, ডা. সাম্মী আক্তার, শাহীনুর আক্তার, হাফেজ মোহাম্মদ আলী প্রমুখ। এসময় এলাকার শতশত নারী উঠান বৈঠকে অংশগ্রহণ করেন।