কুমিল্লায় হেযবুত তওহীদের উদ্যোগে ইফতার মাহফিল

126

টিপু সুলতান, কুমিল্লা:
কুমিল্লার লাকসামে হেযবুত তওহীদের উদ্যোগে বিশাল আলোচনা সভা ও ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে ।
লাকসাম উপজেলা হেজবুত তাওহীদের আয়োজনে শুক্রবার বিকেলে লাকসাম উপজেলার আগমন ফুড পার্ক এন্ড কমিউনিটি সেন্টারে এই ইফতার মাহফিল ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।
লাকসাম উপজেলা হেজবুত তাওহীদের সভাপতি সুজন আলীর সভাপতিত্বে, আলোচনা সভা ও ইফতার মাহফিলে মুখ্য আলোচক হিসেবে গুরুত্বপূর্ণ বক্তব্য রাখেন হেযবুত তওহীদের কেন্দ্রীয় কমিটির শিক্ষা ও প্রশিক্ষণ বিষয়ক উপ-সম্পাদক রাকিব আল হাসান । কুমিল্লা জেলা হেযবুত তওহীদের সাধারণ সম্পাদক ওমর ফারুকের সঞ্চালনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন হেযবুত তওহীদ চট্টগ্রাম বিভাগীয় সভাপতি এনামুল হক বাপ্পা, বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কুমিল্লা জেলা হেযবুত তওহীদের সভাপতি সাইফুল ইসলাম প্রমুখ। অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তোলাওয়াতের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানের সূচনা হয়। এ সময় হেযবুত তওহীদের নেতাকর্মী ও সমর্থকদের উপস্থিতিতে কানায় কানায় পরিপূর্ণ হয়ে ওঠে আগমন ফুড পার্ক এন্ড কমিউনিটি সেন্টারের হল রুম ।
অনুষ্ঠানে বক্তারা প্রকৃত ইসলামের ইতিহাস,সওমের নিয়ম, উদ্দেশ্য, শিক্ষা এবং দেশ ও বিশ্ব জুড়ে চলমান সামাজিক, অর্থনৈতিক, রাজনৈতিক সংকটময় পরিস্থিতি, মুসলমানদের দুর্দশা এবং এ থেকে উত্তরণের পথ নিয়ে আলোচনা করেন।
বক্তারা আরো বলেন, সওম মানে আত্মসংযম, নিজেকে নিয়ন্ত্রণ করা, বিরত থাকা। রোযা তথা সওমের উদ্দেশ্য হচ্ছে মো’মেন ব্যক্তি সারাদিন পানাহার ও জৈবিক চাহিদা পূরণ থেকে নিজেকে বিরত রাখবেন, নিজের আত্মাকে শক্তিশালী করবেন। তিনি অপচয় করবেন না, পশুর ন্যায় উদরপূর্তি করবেন না। তিনি হবেন নিয়ন্ত্রিত, আত্মত্যাগী। বঞ্চিত, ক্ষুধার্ত, দরিদ্র মানুষের দুঃখ অনুভব করে তিনি তাদের ভাগ্য পরিবর্তনের জন্য নিজেকে বিলিয়ে দেবেন। আল্লাহর হুকুম মানার ক্ষেত্রে যে কোনো ত্যাগ স্বীকারে প্রস্তুত থাকবেন । তার এই চরিত্রের প্রতিফলন ঘটবে সামাজিক ও জাতীয় জীবনে। গড়ে উঠবে এমন এক সমাজ যেখানে সবাই একে অপরের জন্য ত্যাগ স্বীকার করতে উৎসাহী হবে, বিরাজ করবে পরস্পর সহমর্মিতা, সহানুভুতি, ভ্রাতৃত্ব। প্রতিষ্ঠিত হবে সত্য ,ন্যায় শান্তিপূর্ণ সমাজ ।