সোনারগাঁয়ে র‍্যাবের জালে ধর্ষন মামলার আসামী গ্রেফতার

225


মোঃ মোক্তার হোসাইন:নারায়ণগঞ্জে সোনারগাঁয়ে ৪৮ ঘন্টার মধ্যে ধর্ষণ মামলার আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব-১১। বৃহস্পতিবার (১ ফেব্রুয়ারি) সোনারগাঁ থানায় অভিযান চালিয়ে আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয় বলে জানায় র‍্যাব ১১। আটককৃত আসামি আল আমিন (৩৫), সোনারগাঁ থানার সাদিপুর ইউনিয়নের দরগাবাড়ীর সোলেমানের পুত্র।

র‍্যাব-১১’র মিডিয়া অফিসার এএসপি সনদ বড়ুয়া প্রেরিত এক বার্তায় জানান, সোনারগাঁয়ে ধর্ষণ সংক্রান্ত মামলার এজাহারনামীয় প্রধান আসামি আল আমিনকে ৪৮ ঘন্টার মধ্যে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। প্রাথমিক তদন্ত সূত্রে জানা যায় যে, গ্রেপ্তারকৃত আসামি আল আমিন (৩৫) একজন ইলেকট্রিক মিস্ত্রী হিসেবে কাজ করার পাশাপাশি অটোরিক্সা চালক। ভিকটিম আসামি আল আমিনের অটোরিক্সা দিয়ে বাজারে যাওয়া আসা করত এবং তার মাধ্যমে বাসার ইলেকট্রনিকের মেরামতের কাজও করাত। এরই প্রেক্ষিতে গত ২৭ জানুয়ারি ভিকটিমের বাসার ফ্রিজের ইলেকট্রিক লাইনের সমস্যা হলে আসামি আল আমিনকে দিয়ে বাসার ফ্রিজের ত্রুটিপূর্ণ বিদ্যুৎ লাইন মেরামত করানো হয়। কাজের মজুরি ৩০০ টাকা হলেও আসামি আল আমিন ভিকটিমের কাছ থেকে ১০০০ টাকা নিয়ে যায়। ভিকটিম বাকি টাকা ফেরত চাইতে গত ২৭ জানুয়ারি সকাল আনুমানিক সাড়ে ১০ টার দিকে আসামি আল আমিনের বাড়িতে গেলে সে।ভিকটিমের হাত ধরে টান মেরে তার রুমে নিয়ে দরজা বন্ধ করে ভিকটিমের হাত মুখ চাপ দিয়ে ধরে ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোর পূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা করে। এই ঘটনায় ভিকটিম বাদী হয়ে সোনারগাঁ থানায় একটি ধর্ষণ সংক্রান্ত মামলা দায়ের করেন।

র‍্যাব আরও জানায়, ধর্ষণের অপরাধের সাথে জড়িত আসামি আল আমিনকে গ্রেপ্তার করার লক্ষ্যে র‍্যাব-১১, এর সিপিএসসি কোম্পানি আসামিকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা করে। পরবর্তীতে সুনির্দিষ্ট তথ্যের ভিত্তিতে বৃহস্পতিবার (১ ফেব্রুয়ারি) সোনারগাঁ থানা এলাকা হতে আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরবর্তী আইনানুগ কার্যক্রমের জন্য আসমিকে সোনারগাঁ থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে বলে জানান র‍্যাব।